Home বানিয়াচং বানিয়াচংয়ে বাড়ির সীমানা নিয়ে সংঘর্ষে আহত শানু মিয়ার মৃত্যু। এলাকা থমথমে

বানিয়াচংয়ে বাড়ির সীমানা নিয়ে সংঘর্ষে আহত শানু মিয়ার মৃত্যু। এলাকা থমথমে

0
শেয়ার করুনঃ

বানিয়াচং প্রতিনিধি : গত মঙ্গঁলবার বাড়ির সীমানা দেয়াকে কেন্দ্র করে দুই মহলস্নাবাসীদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনায় আহত শানুর মৃত্যুবরণ করছেন। (ইন্নালিস্নলাহী——-রাজিউন)। রোববার (২০আগস্ট) বেলা দুইটায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেন। নিহত শাহানুর ওরফে শানু মিয়া জাতুকর্ণপাড়ার আব্দুল মালেক মিয়ার পুত্র। মৃত্যুকালে শাহানুর দুই ছেলে,দুই মেয়েসহ অসংখ্য আত্নীয়স্বজন ও গুনগাহী রেখে গেছেন। মরহুমের জানাজার নামাজ আগামীকাল (সোমবার) সকাল দশটায় স্থানীয় ঈদগাহ ময়দানে অনুষ্ঠিত হবে বলে তার পারিবারিক সুত্রে জানা গেছে।

 

উল্লেখ্য,ঠাকুরাইন দিঘীর পূর্ব পাড়ের বাসিন্দা আইয়ুব আলী ও সাগরদিঘীর পূর্বপাড়ের বাসিন্দা এজাবত উল্বার মেয়ে সুহেনার সাথে দীর্ঘদিন ধরে বাড়ীর সীমানা নিয়ে বিরোধ চলে আসছে দীর্ঘদিন ধরে। সম্প্রতি সোহেনার এক ভাইয়ের ক্যান্সারের চিকিৎসা করার জন্য টাকার প্রয়োজন হলে সুহেনা তার বাড়ীর অংশ বিক্রি করার সিন্ধামত্ম নেন। গত ১৫ আগস্ট মঙ্গঁলবার কয়েকজন জনপ্রতিনিধিসহ বেশ ক’জন লোক একটি বাড়ির সীমানা নির্ধারণ করতে গেলে আইয়ুব আলী গংরা এতে বাধা প্রদান করে। এক পর্যায়ে আইয়ুব আলী গংরা উত্তেজিত হয়ে মোজাহিদ মেম্বার, ধন মিয়া মেম্বার, সাহেদ মেম্বার, আব্দু ছালাম মেম্বার সহ আরো বেশ ক’জনের উপর চড়াও হয়ে তাদেরকে বেধড়ক মারপিট করে।

 

এদের মধ্যে জাতুকর্ণপাড়ার আব্দুল মালেক মিয়ার পুত্র শানুরকে গুরম্নতর আহত অবস্থায় সিলেটের ইবনেসিনা হাসপাতালের নিবীড় পর্যবেক্ষণ কেন্দ্র (আইসিইউ)তে ভর্তি করা হয়। সেখানে তিনদিন চিকিৎসা শেষে অবস্থার কিছুটা উন্নতি হলে পরে ওসামানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আইসিইউতে নেয়া হয়। চিকিৎসাধীন অবস্থায় সেখানে রোববার দুপুর দুইটায় মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়ে শাহনুর ওরফে শানু মিয়া। ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন বানিয়াচং থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোজাম্মেল হক। তিনি আরও জানান,অনাকাঙ্খিত ঘটনা এড়াতে এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

শেয়ার করুনঃ

মন্তব্য করুন

Load More In বানিয়াচং